ভোলায় এসএসসিতে নকলের মহোৎসব! একদিনে বহিষ্কার ১৩৪ শিক্ষার্থী

ভোলার চরফ্যাশন উপজেলায় এসএসসি পরীক্ষায় চলছে নকলের মহোৎসব! একদিনেই নকলের দায়ে ১৩৪ শিক্ষার্থীকে বহিস্কার করা হয়েছে। চরফ্যাশন উপজেলায় মোট ১২টি কেন্দ্রে এএসসি ও দাখিল পরিক্ষা অনুষ্ঠিত হচ্ছে।

উপজেলার দক্ষিণ আইচা রাব্বানিয়া আলিম মাদ্রাসা, শশীভূষন মাধ্যমিক বিদ্যালয় নুরাবাদ হোসাইনিয়া ফাজিল মাদ্রাসাসহ চরফ্যাশন টি.বি মাধ্যমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে এসএসসি পরিক্ষার্থীদের নকলেই যেন একমাত্র ভরসা।

এ নকলের দায়ে আজ বৃহস্পতিবার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট এসএসসি ও দাখিল পরিক্ষায় ১৩৪ পরিক্ষার্থীকে এ বহিস্কার করেন। দক্ষিণ আইচা রাব্বানিয়া আলিম মাদ্রাসায় ৫জন, শশীভূষন মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে ৫জন ও নুরাবাদ হোসাইনিয়া ফাজিল মাদ্রাসায় ১২৪ জন শিক্ষার্থী নকলের দায়ে বহিস্কার হন।

এদিকে টিবি স্কুল কেন্দ্রের বালিকা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে টিবি স্কুলের এসএসসি শিক্ষার্থীরা নকল করে পরিক্ষা দিচ্ছে এবং অভিভাবক ও শিক্ষকরা ভালো ফলাফলের আশায় পরিক্ষা কেন্দ্রে নিজেরাই নকল সরবরাহ করছেন বলে দাবি করেন সচেতন মহল।

এমন সূত্রে তথ্য সংগ্রহ করতে জাতীয় ও আঞ্চলিক পত্রিকার সাংবাদিকরা কেন্দ্রে প্রবেশ করতে গেলে টি.বি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের কেন্দ্রের সচিব ও টি.বি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক তানবির আহমেদসহ চরফ্যাশন থানার এএসআই মোঃ হাসান বাধা প্রদান করে।

এসময় কেন্দ্র সচিব তানভির আহমেদ ঘটনাস্থলে এসে সাংবাদিকদের ‘কি হয়েছে এখানে’ জিজ্ঞেস করেন। পরে সাংবাদিক পরীক্ষার বিষয়ে শিক্ষকদের সাথে অফিসে কথা বলে চলে যাবেন বললেও তিনি বাধা দেন। এছাড়াও চরফ্যাশন থানার এএসআই হাসান সাংবাদিকের পরিচয় জানার পরেও তাদের সাথে বাকবিতন্ডায় জড়িয়ে পড়েন।

এদিকে শশীভূষন মাধ্যমিক বিদ্যালয়, দুলারহাট মাধ্যমিক বিদ্যালয় চরফ্যাশন কারামাতিয়া কামিল মাদ্রাসা কেন্দ্র ঘুরে দেখা যায় কেন্দ্রগুলোতে বিভিন্ন সাধারণ ব্যাক্তি ও অভিভাবকদের পদচারনা।

এ বিষয়ে বালিকা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক শিক্ষিকা বিডি৩৬০ নিউজকে বলেন – চরফ্যাশন টিবি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের অভিভাবকরা পরিক্ষা চলাকালীন সময়ে পরীক্ষার হলে আসেন কিন্তু ইংরেজী ও গনীত পরিক্ষায় অভিভাবকরা বেশি এসেছেন আজকে তারা আসেননি।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক অন্য এক শিক্ষক বিডি৩৬০ নিউজকে বলেন – টিবি স্কুলের শিক্ষার্থীদের সহযোগীতা করতে পরিক্ষার হলে বিভিন্ন ব্যাক্তিরা ব্যক্তি পাওয়ারেই আসেন।

সাংবাদিকদের প্রবেশে বাধা ও টিবি স্কুলের শিক্ষার্থীদের নকলে সহযোগিতা প্রষঙ্গে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. রুহুল আমিন বলেন – জনসাধারণ এসএসসি পরিক্ষা কেন্দ্রে প্রবেশ সম্পূর্ণ অবৈধ তবে সাংবাদিকরা পরীক্ষার কেন্দ্রে প্রবেশ করতে পারবে সেটা সমন্বয়ের মাধ্যমে। আজ নকলের দায়ে তিন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ১৩৪ জনকে বহিস্কার করা হয়েছে আমরা নকল ও নকলে সহযোগীতা করার তথ্য পেলেই ব্যবস্থা নিবো।

এদিকে চরফ্যাশনের ১২টি কেন্দ্রে চলমান এসএসসি ও দাখিল পরিক্ষায় মোট ৫হাজার ২শ ৭২ জন শিক্ষার্থী অংশগ্রহন করেছেন। এর মধ্যে প্রায় ১শ শিক্ষার্থী অনুপস্থিত বলে জানা যায়।

#গিয়াস উদ্দিন, ভোলা প্রতিনিধি।



আরো পড়ুন>>>

Agami Soft. - Inventory Management System

পাঠকের মতামত