এক ম্যাচে দুই রেকর্ড গড়লেন এমবাপ্পে, পেছনে ফেললেন মেসিকে

চ্যাম্পিয়নস লিগে কাল রাতে ক্লাব ব্রুগেকে বিধ্বস্ত করে দিয়েছে পিএসজি। ৫-০ গোলে তাদের হারায় প্যারিস জায়ান্টরা। তাদের জয়ের রাতে মেসি রেকর্ড ভাঙলেন পিএসজি তারকা কিলিয়ান এমবাপ্পে। চ্যাম্পিয়নস লিগে সবথেকে কম বয়সে ১৫ গোল করার রেকর্ড গড়েন ২০ বছর বয়সী এ ফরোয়ার্ড।

চোটের কারণে কয়েক ম্যাচ ছিলেন মাঠের বাইরে। কিন্তু চোট কাটিয়ে রাজকীয়ভাবে ফিরলেন ফ্রান্সের প্রাণ ভোমরা। বেলজিয়ামের ক্লাবটিকে পুরো নাকানি-চুবানি খাওয়ালেন তিনি। শুধু রেকর্ড ভেঙেই ক্ষান্ত হননি তিনি। করেছেন হ্যাটট্রিকও। আর এইসব কাণ্ড দেখালেন বদলি খেলোয়াড় হিসেবে নেমে।

৫২ মিনিটে মাঠে নেমেছিলেন বদলি হয়ে। ৬১ মিনিটে প্রথম গোলটি করার ২ মিনিট পরই গোল করিয়েছেন মাউরো ইকার্দিকে দিয়ে। এরপর ৭৯ ও ৮৩ মিনিটে গোল করে তুলে নিয়েছেন হ্যাটট্রিক। চ্যাম্পিয়নস লিগের ইতিহাসে বদলি হয়ে মাঠে নেমে দ্রুততম হ্যাটট্রিকের রেকর্ড এখন এমবাপ্পের। এ ছাড়াও চ্যাম্পিয়নস লিগে গ্রুপপর্বের ইতিহাসে এটি ছিল শততম হ্যাটট্রিক। সব মিলিয়ে হ্যাটট্রিকসংখ্যা ১২৪টি।

চ্যাম্পিয়নস লিগে এ নিয়ে ১৬ গোল করলেন এমবাপ্পে। মাত্র ২০ বছর ৩০৬ দিনে ন্যূনতম ১৫ গোলের মাইলফলক ছুঁয়ে ফেললেন তিনি। চ্যাম্পিয়নস লিগে এর আগে সবচেয়ে কম বয়সে ন্যূনতম ১৫ গোল করার রেকর্ডটি ছিল মেসির। ২১ বছর ২৮৮ দিন বয়সে মেসির গড়া সেই রেকর্ড কাল নিজের করে নিয়েছেন এমবাপ্পে। রিয়াল মাদ্রিদের ‘ঘরের ছেলে’খ্যাত রাউল গঞ্জালেসের রেকর্ড ভেঙেছিলেন মেসি।

ইউরোপসেরা হওয়ার এ প্রতিযোগিতায় বদলি হয়ে নেমে হ্যাটট্রিক করার নজির দেখা যায়নি বেশ কয়েক মৌসুম। প্রায় ১১ বছর পর তা ফিরিয়ে আনলেন এমবাপ্পে। চ্যাম্পিয়নস লিগে এর আগে বদলি হয়ে নেমে হ্যাটট্রিক করেছিলেন জোসেবা লরেন্তে। ২০০৮ সালে ভিয়ারিয়ালের হয়ে আলবোর্গের বিপক্ষে হ্যাটট্রিক করেছিলেন তিনি। ৩ ম্যাচে ৯ পয়েন্ট নিয়ে ‘এ’ গ্রুপের শীর্ষে পিএসজি।

Agami Soft. - Inventory Management System

পাঠকের মতামত