সুনামগঞ্জে অগ্নিকান্ডের ঘটনায় ৪ পরিবারের প্রায় ২০ লাখ টাকার ক্ষয়ক্ষতি

সুনামগঞ্জের ধর্মপাশা উপজেলাস্থ মধ্যনগর থানার বৈঠাখালী গ্রামে অগ্নিকান্ডের ঘটনায় ৪টি পরিবারের প্রায় ২০ লাখ টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। বিদ্যুতের লাইন থেকে এ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনাটি ঘটেছে বলে তাৎক্ষণিকভাবে জানা গেছে। গোপী রঞ্জন তালুকদারসহ হিন্দু সম্প্রদায়ের ৪টি বসতঘরে আজ রবিবার সকালে এ অগ্নিকান্ডের ঘটনাটি ঘটে।

স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, বৈঠাখালী গ্রামের মৃত জিতেন্দ্র তালুকদারের ছেলে গোপী রঞ্জন তালুকদারের দোতলা বাড়ির বিদ্যুতের লাইন থেকে অগ্নিকান্ডের সূত্রপাত ঘটে। নিমিষেই তার সহোদর দ্বিজেন তালুকদার, জ্যোতিষ তালুকদার ও সুষেন তালুকদারের বসত ঘরে আগুনের লেলিহান শিখা ছড়িয়ে পড়ে। আগুনের প্রকোপে এই চারটি বসত ঘরের গোলায় রক্ষিত শতাধিক মন ধান- চাল, আসবাব পত্রসহ পুরো ঘরবাড়ি পুড়ে ছাই হয়ে যায়। খবর পেয়ে গ্রামের লোকজন জড়ো হয়ে আগুন নিয়ন্ত্রনে আনার চেষ্টা করলেও ততক্ষনে ঘর ও ঘরের ভেতরে রক্ষিত সব মালামালগুলো পুড়ে ছাই হয়ে যায়।

এদিকে খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শনে আসনে স্থানীয় মধ্যনগর সদর ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান প্রবীর বিজয় তালুকদারসহ এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গরা। অগ্নিকাণ্ডে ক্ষতিগ্রস্থ গোপী রঞ্জন তালুকদারের ছেলে ঝলক রঞ্জন তালুকদার জানান, এই অগ্নিকাণ্ডে প্রায় ২০ লাখ টাকার ক্ষতি হয়েছে।

মধ্যনগর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান প্রবীর বিজয় তালুকদার ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন – খবর পেয়ে আমি এলাকার লোকজনকে সাথে নিয়ে ঘটনাস্থল পরির্দশন করেছি। ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারগুলোকে সহায়তা করার জন্য একটা তালিকা তৈরী করে উপজেলা নির্বাহী অফিসারের নিকট পাঠানো হবে বলেও জানান তিনি।

এ ব্যাপারে ধর্মপাশা উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ ওবায়দুর রহমান অগ্নিকান্ডের ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন – আমি ঘটনাস্থলে পরিদর্শন করে একটি তালিকা প্রনয়ন করে জেলা প্রশাসনের নিকট পাঠাবো। যাতে করে ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারগুলো সরকার থেকে আর্থিক সহায়তা পান।

#আতিকুর রহমান, সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি।

Agami Soft. - Inventory Management System

পাঠকের মতামত