দুই বছর ধরে অ্যাপলের সাথে চীনা নাগরিকের প্রতারণা!

প্রতীকী ছবি।

দুই বছর ধরে বিশ্বের অন্যতম সেরা প্রযুক্তি কোম্পানি অ্যাপলের লাগাতার প্রতারণা করে আসছিলেন চীনের এক নাগরিক। হুবহু আইফোনের মতো দেখতে নকল মোবাইল সেটের বদলে তিনি অ্যাপলের কাছ থেকে হাতিয়ে নিয়েছেন একটি-দুটি নয়; প্রায় এক হাজার ৫০০টি আসল আইফোন, যার একেকটির বাজারমূল্য প্রায় ৬০০ ডলার।

বার্তা সংস্থা এপি জানিয়েছে, এমন কাণ্ডের হোতা জিয়াং (৩০) যুক্তরাষ্ট্রের ওরেগন রাজ্যের একটি কমিউনিটি কলেজের শিক্ষার্থী। নকল পণ্য চোরাচালানের অভিযোগে গতকাল বুধবার জিয়াংকে দোষী সাব্যস্ত করেছে মার্কিন ফেডারেল কোর্ট।

ফোনগুলো চালু হচ্ছে না—এ অভিযোগ দেখিয়ে ফোনের গ্যারান্টির সুযোগ নিতেন তিনি। নকল ফোনসেটগুলো বদলে দেওয়ার জন্য তিনি অ্যাপলের কাছে পাঠাতেন কখনো ডাকযোগে, আবার কখনো নিজেই গিয়ে দিয়ে আসতেন। এভাবে প্রায় তিন হাজার নকল আইফোন অ্যাপলকে পাঠান তিনি।

যুক্তরাষ্ট্রের অ্যাটর্নি অফিস জানিয়েছে, হংকং থেকে বিভিন্ন নামে নকল আইফোন আমদানি করতেন জিয়াং। এরপর সেগুলো অ্যাপল অফিসে পাঠাতেন। এরপর অ্যাপল থেকে পাওয়া আসল ফোনগুলো চীনে বিক্রির জন্য পাঠাতেন জিয়াং। সেখানে জিয়াংয়ের সহযোগীরা ফোন বিক্রি থেকে পাওয়া অর্থ তাঁর মায়ের কাছে পৌঁছে দিতেন।

এ বিষয়ে অ্যাপলের ব্র্যান্ড প্রটেকশন রিপ্রেজেন্টেটিভ আদ্রিয়ান পান্ডারসন বলেন – কোনো গ্রাহক যদি ফোন চালু না হওয়ার অভিযোগ করে তাঁর সেটটি বদলে দিতে বললে আইফোনের ওয়ারেন্টি পলিসি অনুযায়ী তাঁকে সেটা দেওয়া হয়। এর কারণ হিসেবে এ কর্মকর্তা বলেন – আইফোনের সূক্ষ কারিগরি নকশার কারণে তৎক্ষণাৎ সব ফোনসেট খুলে পরীক্ষা করা সম্ভব হয় না।’

আগামী আগস্ট মাসের ২০ তারিখ জিয়াংয়ের বিরুদ্ধে দায়ের করা মামলার রায় ঘোষণা করা হবে। আদালতের রায়ে অর্থদণ্ডসহ তিন থেকে ১০ বছরের সাজা হতে পারে জিয়াংয়ের।

Agami Soft. - Inventory Management System

পাঠকের মতামত