কিশোরীর নির্যাতনের ছবি ভাইরাল, নির্যাতনকারীকে খুঁজছেন তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী

গতকয়েকদিন ধরেই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এক কিশোরীকে গাছে বেঁধে নির্যাতনের ছবি ঘুরছে। এই ছবিটি সোস্যাল মিডিয়ায় প্রকাশ হওয়ার সাথে সাথে ভাইরাল হয়ে যায়। ছবিটি নিয়ে ফেসবুক ব্যবহারকারীরা ধিক্কার জানাচ্ছেন।

ছবিটি সম্পর্কে ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তিমন্ত্রী মোস্তাফা জব্বারও বিরূপ প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন। তিনি ছবিটি তার ফেসবুক ওয়ালে শেয়ার করে ওই কিশোরীর ওপর নির্যাতনকারীর পরিচয় জানতে চেয়েছেন।

মন্ত্রী তার ফেসবুক ওয়ালে লিখেছেন – কোন (কোনো) সভ্য সমাজে কি এমনটি ঘটতে পারে? একটি কিশোরীকে এভাবে অত্যাচার করার জন্য বেঁধে রাখাটাই কি কোন (কোনো) সভ্য মানুষ করতে পারে? অনুগ্রহ করে খোজে (খুঁজে) বের করুন—অপরাধী কে। লামায় কি কেউ নেই?’

ইমতিয়াজ কানন নামে এক ফেসবুক ব্যবহারকারীর ওয়াল থেকে ছবিটি শেয়ার করেন মন্ত্রী। এদিকে এ বিষয়ে জানতে চাইলে লামা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আমিনুল হক প্রিয়.কমকে বলেন -ঘটনাটি দুই থেকে সাড়ে তিন মাস আগের। এ ঘটনায় মামলা হয়েছে। বিষয়টি তদন্তাধীন।

প্রকাশিত ছবিতে দেখা যায়, গাছের সাথে একজন কিশোরীকে উল্টোদিক থেকে হাত বেঁধে রাখা হয়। এছাড়াও কাপড় দিয়ে মেয়েটির মুখ বেঁধে রাখা হয়েছে। জানা যায়, বান্দরবানের লামা উপজেলায় এ ঘটনাটি ঘটে।

পাঠকের মতামত