বাংলাদেশে যৌন শিক্ষার ক্লাসে কি শিখছে শিক্ষার্থীরা? (ভিডিও সহ)

বাংলাদেশের মতো দেশে যেখানে কিশোর-কিশোরীদের বয়ঃসন্ধিকালীন শারীরিক পরিবর্তন এবং অবশ্যম্ভাবী প্রজনন স্বাস্থ্য নিয়ে আলাপ-আলোচনা করা সামাজিকভাবে অনেকটা নিষিদ্ধ একটি বিষয়, সেখানে শ্রেণীকক্ষে এসব বিষয়ে শিক্ষাদান করা নিঃসন্দেহে ঝুঁকিপূর্ণ।

বাংলাদেশের সরকার দীর্ঘদিন চেষ্টা করে, পাঠ্যক্রমে প্রজননস্বাস্থ্য বিষয়ক অধ্যায় অন্তর্ভুক্ত করেও কাঙ্ক্ষিত সাফল্য পায়নি।
কিন্তু এবার সম্পূর্ণ ভিন্ন একটি পন্থায় প্রজনন স্বাস্থ্য ও জেন্ডার শিক্ষা দেয়ার একটি উদ্যোগ গ্রহণ করেছে দেশটির শিক্ষা মন্ত্রণালয়।

এর অংশ হিসেবে একটি পাইলট প্রকল্প করে গত ৫ বছর ধরে সাড়ে তিনশ বিদ্যালয়ে এ বিষয়ক পূর্ণাঙ্গ একটি কোর্সও পড়ানো হচ্ছে। এ বিষয়ের উপর একটি প্রতিবেদন তৈরী করেছেন বিবিসি। এখন দেখার বিষয় কতটুকু শিখতে পেরেছে শিক্ষার্থীরা?

প্রতিবেদনে বলা হয় – পশ্চিমা বিশ্বে স্কুলগুলোতে যেমন ‘সেক্স এডুকেশন’ নামের আবশ্যিক একটি কোর্স আছে, বাংলাদেশের কোর্সটি অনেকটা এমন হলেও বাংলাদেশে এর নাম দেওয়া হয়েছে “জেমস (JEMS) ক্লাস”। যার মানে হচ্ছে ‘জেন্ডার ইকুইটি মুভমেন্ট ইন স্কুল’। প্রকল্পটি পশ্চিমা বিশ্বের সেক্স এডুকেশনের মতোই যাকে বলা হয় ‘জেনারেশন ব্রেকথ্রু’।

পাঠকের মতামত