মুরগির হামলায় মারা গেল শিয়াল পন্ডিত

যদি আপনাকে জিজ্ঞেস করা হয় মুরগির বড় শত্রু কে? আপনি কি উত্তর দিবেন? স্বভাবতই উত্তর আসবে ‘শিয়াল’। কিন্তু ফ্রান্সের উত্তর-পূর্বাঞ্চলের বুতানিয়া এলাকার একটি কৃষিবিষয়ক বিদ্যালয়ে এক অদ্ভুত ঘটনা ঘটে গেছে।

গত সপ্তাহে এই অদ্ভুত ঘটনা ঘটে গেছে। বুতানিয়া এলাকার একটি কৃষিবিষয়ক বিদ্যালয়ে একটি মুরগির খামার আছে। হাজার ছয়েক মুরগি রয়েছে খামারটিতে। মুরগিগুলো সারা দিন বাইরে চরে বেড়ায়। সন্ধ্যা হলে নিজ থেকে ঘরে উঠে আসে। সূর্য ডুবে গেলেই দরজা বন্ধ হয়ে যায় স্বয়ংক্রিয়ভাবে।

একদিন সকালে শিক্ষার্থীরা মুরগির ঘরের এক কোনায় সকালে মৃত একটি শিয়াল পড়ে থাকতে দেখে। শিয়ালটির মৃতদেহ যে ঘরে পাওয়া গেছে, সেখানে তিন হাজার মুরগি ছিল।

বিদ্যালয়ের চাষাবাদ বিভাগের প্রধান প্যাসকেল দানিয়েল বলেন – শিয়ালটি সন্ধ্যায় কোনোভাবে মুরগির ঘরে ঢুকে পড়েছিল বলে ধারণা করা হচ্ছে। ঘরের দরজা স্বয়ংক্রিয়ভাবে বন্ধ হয়ে যাওয়ায় আর বের হতে পারেনি। শিয়ালটির বয়স পাঁচ-ছয় মাস হবে। দুই ফুটের মতো লম্বা শিয়ালটির সারা শরীরে মুরগির ঠোকরের চিহ্ন ছিল।

স্থানীয় বন্য প্রাণী বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছেন, এই ঘটনায় তাঁরা অবাক। শিয়ালটি বাচ্চা ও অনভিজ্ঞ ছিল। এতগুলো মুরগির সামনে পড়ে সে সম্ভবত ভড়কে গিয়েছিল।

পাঠকের মতামত