পর্যটকদের জন্য খুলছে মহাকাশে হোটেল

খুব শীঘ্রই পর্যটকদের জন্য মহাকাশে হোটেল খোলার ঘোষণা দেয়া হয়েছে। তাও আবার একটি-দুটি নয়, পাঁচটি হোটেল পর্যটকদের সেবার নিয়োজিত থাকবে। সম্প্রতি একটি মহাকাশ বিজ্ঞান সম্মেলনে এমন ঘোষণা দেয়া হয়েছে। খবর স্কাই নিউজের।
স্কাই নিয়জের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়ার সান জোসে’তে আয়োজিত স্পেস ২.০ সম্মেলনে বৃহস্পতিবার বিশেষ বিনোদনমূলক হোটেল খোলার সিদ্ধান্তের কথা বলা হয়। অরোরা স্টেশন প্রজেক্ট’র আওতায় দুই কর্মীসহ ৬ জনের জিরো গ্রাভিটিতে বসবাসের সুযোগ মিলবে।ঘোষণায় বলা হয় হয়েছে যে টানা ১২ দিনের ওই সফরে পর্যটকেরা যে সুযোগ সুবিধা পাবেন, তা যে কোনো প্রথম শ্রেণীর হোটেলে দেয়া হয়ে থাকে।
সেই সাথে থাকবে মহাকাশে নভোচারী হয়ে তারকামণ্ডল দেখার সুযোগ!জিরো গ্রাভিটিতে অর্থাৎ মধ্যাকর্ষণ ছাড়া ভাসতে ভাসতে মহাকাশের বিরল নানা অভিজ্ঞতা নেয়ার পাশাপাশি যে অভিজ্ঞতাটি তাদের হবে তা কোনো পৃথিবী বাসির হয়নি। তা হচ্ছে ২৪ ঘণ্টায় অর্থাৎ পৃথিবীর হিসেবে একদিনে গড়ে ১৬ বার সূর্যোদয় এবং সূর্যাস্ত দেখার সৌভাগ্য হবে।
সম্মেলনে পৃথিবীকে চক্কর দিতে গিয়ে ভাম্যমাণ হোটেলটি আবার মহাকাশে হারিয়ে যাবে কিনা সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে বিজ্ঞানীরা আশ্বস্ত করে বলেন, এমন কোনো আশঙ্কাই নেই।অবশ্য হোটেল সুবিধা দেয়া ছাড়াও এই প্রকল্পের অধীনে বেশ কিছু গবেষণাও চলবে। মহাকাশে খাদ্যের উৎপাদন নিয়ে গবেষণা ছাড়াও ভার্চুয়াল রিয়ালিটি, হাই স্পিড ইন্টারনেট সুবিধা বিষয়েও বিজ্ঞানীরা খতিয়ে দেখবেন।
প্রকল্পটি সম্পর্কে ওরিয়ন স্পানের প্রতিষ্ঠাতা এবং প্রধান ফ্রাঙ্ক বাংগার সংবাদমাধ্যমকে জানান, আগামী ২০২১ সাল নাগাদ হোটেলটির উদ্বোধন করা হবে। সেই বছরই মহাকাশে পর্যটকদের প্রথম দলটিকে মহাকাশে পাঠানো হবে।তবে খরচ যে আকাশচুম্বী হবে তা বলাই বাহুল্য! এমনকি আগ্রহী পর্যটকদের বিশাল অংকের অর্থ জামানতও রাখতে হবে। একজন পর্যটকের জন্য প্রাথমিকভাবে হোটেল খরচ ধরা হয়েছে ৮০ কোটি টাকা।

পাঠকের মতামত