ত্রিভুবন বিমানবন্দরের ছয় কর্মকর্তাকে বদলি

নেপালে ইউএস-বাংলা’র উড়োজাহাজ বিধ্বস্তের ঘটনায় কাঠমান্ডুর ত্রিভুবন আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের নিয়ন্ত্রণ কক্ষের ছয় কর্মকর্তাকে বদলি করা হয়েছে।

দুর্ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী এই ছয় কর্মকর্তার মানসিক আঘাত প্রশমনে এ ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে।

মঙ্গলবার দেশটির ইংরেজি দৈনিক মাই রিপাব্লিকা এক প্রতিবেদনে এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।

প্রতিবদেনে বলা হয়েছে, ভয়াবহ ওই দুর্ঘটনা প্রত্যক্ষ করার ধাক্কা সামলে ওঠার সুযোগ দিতে ত্রিভুবন আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের এয়ার ট্রাফিক কন্ট্রোল টাওয়ারে (এটিসি) দায়িত্বে থাকা ওই কর্মকর্তাদের বদলি করা হয়েছে।

এদিকে, এ দুর্ঘটনার কারণ খতিয়ে দেখতে কাজ করছে ছয় সদস্যের তদন্ত কমিটি। মঙ্গলবার সকালে নেপাল সরকার দেশটির বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষের সাবেক মহাপরিচালক যজ্ঞ প্রসাদ গৌতমের নেতৃত্বে এই তদন্ত কমিটি গঠন করে।

এর আগে সোমবার ঢাকা থেকে নেপালের রাজধানী কাঠমান্ডুর ত্রিভুবন আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পৌঁছানোর পর দুর্ঘটনায় পড়ে ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্সের ফ্লাইট বিএস ২১১। বিমানবন্দরের এটিসি টাওয়ারের দেয়া ভুল অবতরণ বার্তার জেরে আকাশে অপেক্ষা করতে থাকে বিমানটি।

পরে ৬৭ যাত্রী ও চার ক্রুসহ সোমবার দুপুর ২টা ২০ মিনিটে বিমানটি বিমানবন্দরের পাশের একটি ফুটবল মাঠে বিধ্বস্ত হয়। এতে ৫০ যাত্রীর প্রাণহানি ঘটে। অপর ২১ আরোহী বর্তমানে রাজধানী কাঠমান্ডুর কেএমসি হাসপাতাল, নরভিক হাসপাতাল ও ওএম হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে।

পাঠকের মতামত